Categories
News

নেইমার-রামোস কর্তৃক আল নাসের ক্লাবের ইন্সটাগ্রাম একাউন্ট ফলো করার দাবিটি মিথ্যা


সম্প্রতি, “Marcelo, Ramos and Neymar have all started following Al Nassr after Ronaldo’s move to the club.Cristiano Ronaldo’s influence is insane.” শীর্ষক শিরোনামে একটি তথ্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়েছে।

ফেসবুকে প্রচারিত কিছু পোস্ট দেখুন এখানে, এখানে, এখানে, এখানেএখানে
পোস্টগুলোড় আর্কাইভ ভার্সন দেখুন এখানে, এখানে, এখানে, এখানেএখানে। 

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানারের অনুসন্ধানে জানা যে, রোনালদো AL Nassr এ যাওয়ার পর রামোস, মার্সেলো ও নেইমার ক্লাবটির ইনস্টাগ্রাম প্রোফাইলকে ফলো করেননি, বরং রামোস ও নেইমার এর ফলোয়িং লিস্টে Al Nassr এর নাম খুঁজে পাওয়া যায়নি, এবং মার্সেলো Al Nassr কে ফলো করলেও তা যে রোনালদো ক্লাবটি জয়েন করার পরই তিনি করেছে এমন কোনো নিশ্চিত তথ্য পাওয়া যায়নি।

অনুসন্ধানে উক্ত দাবিটির কোন নির্ভরযোগ্য তথ্যসূত্র খুঁজে পাওয়া যায়নি।

পরবর্তীতে, নেইমারের অফিশিয়াল ইনস্টগ্রাম অ্যাকাউন্টে গিয়ে ফলোয়িং সেকশনে Al Nassr লিখে সার্চ করে দেখা যায় তিনি এই ফুটবল ক্লাবটিকে ফলো করেন না।

একইভাবে, সার্জিও রামোসের ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টে গিয়ে ফলোয়িং সেকশনে সার্চ করে দেখা যায় তিনিও  Al Nassr কে ফলো করেন না ।

এরপর, মার্সেলোর ভ্যারিফাইড ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টে গিয়ে ফলোয়িং সেকশনে AL Nassr লিখে সার্চ করে দেখতে পাওয়া যায় তিনি Al Nassr ফুটবল ক্লাবের ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্ট ফলো করেন। তবে রোনালদো ক্লাব পরিবর্তন করে Manchester United থেকে Al Nassr এ যাবার পরই যে তিনি AL Nassr কে ফলো করেছেন, আগে করতেন না এমন কোনো তথ্য পাওয়া যায় নি।

অর্থাৎ, নেইমার জুনিয়র ও সার্জিও রামোস Al Nassr কে ইনস্টাগ্রামে ফলো করেন না তবে মার্সেলো ভিয়েরা ক্লাবটির ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্ট ফলো করেন। 

পরবর্তীতে, Al Nassr এর ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্ট ঘুরে কিছু পোস্টে মার্সেলো ভিয়েরার লাইক খুঁজে পাওয়া গেলেও নেইমার কিংবা সার্জিও রামোসের কোনো লাইক খুঁজে পাওয়া যায়নি।

মূলত, ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো গত ৩০ ডিসেম্বর ১ জানুয়ারি ২০২৩ থেকে ২০২৫ সাল পর্যন্ত Al Nassr এর হয়ে খেলবেন বলে ক্লাবটির সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হন। অন্যদিকে নেইমার জুনিয়র ও সার্জিও রামোস Paris Saint-Germainn ফুটবল ক্লাবের হয়ে খেলেন এবং মার্সেলো ভিয়েরা Olympiacos ফুটবল ক্লাবের হয়ে খেলেন। এরই প্রেক্ষিতে ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো Al Nassr এ যোগ দান করার পর তার সিদ্ধান্তে প্রভাবিত হয়ে নেইমার, রামোস ও মার্সেলো ক্লাবটির ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্ট ফলো করেছেন দাবিটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচার করা হচ্ছে। 

উল্লেখ্য, Al Nassr ফুটবল ক্লাবটি ১৯৫৫ সালে প্রতিষ্ঠিত। এটি সৌদির রাজধানী রিয়াদে অবস্থিত।

সুতরাং, ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো Al Nassr ফুটবল ক্লাবে যোগদানের পর নেইমার, রামোস ও মার্সেলো ক্লাবটির ইনটাগ্রাম অ্যাকাউন্ট ফলো করেছেন দাবিতে যে তথ্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে প্রচার করা হচ্ছে; তা সম্পূর্ণ মিথ্যা।

তথ্যসূত্র





Source link