Categories
News

জামায়াত আমিরের মুক্তির দাবিতে প্রচারিত রাজপথ ঘেরাওয়ের ভিডিওটি বিভ্রান্তিকর


সম্প্রতি, “জামাত আমিরের মুক্তির দাবিতে রাজপথ ঘেরাও করলো জামাত শিবির। সরাসরি দেখুন” শীর্ষক শিরোনামের একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে প্রচারিত হচ্ছে।

ফেসবুকে প্রচারিত এরকম কিছু পোস্ট দেখুন এখানে এবং এখানে। 
পোস্টগুলোর আর্কাইভ ভার্সন দেখুন এখানে এবং এখানে

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে জানা যায়, উক্ত ভিডিওটি জামায়াতে ইসলামীর আমির ডাক্তার শফিকুর রহমানের মুক্তির দাবিতে জামায়াত ও শিবিরের নেতাকর্মীদের রাজপথ ঘেরাও করার ভিডিও নয় বরং এটি ২০২০ সালের নভেম্বরে ঢাকায় কওমি মাদ্রাসার শিক্ষার্থীদের ভাস্কর্য বিরোধী বিক্ষোভের সময়ের৷

কি-ওয়ার্ড সার্চের মাধ্যমে ইংরেজি দৈনিক New Age এর ইউটিউব চ্যানেলে ২০২০ সালের ২৭ নভেম্বরে “Police disperse anti-sculpture rally” শীর্ষক শিরোনামে প্রকাশিত একটি ভিডিও খুঁজে পাওয়া যায়।

উক্ত ভিডিওর সাথে জামায়াতে আমির শফিকুর রহমান গ্রেফতারের ঘটনায় জামায়াত-শিবিরের রাজপথ ঘেরাও করার দাবিতে প্রচারিত ভিডিওর মিল খুঁজে পাওয়া যায়।

অপরদিকে দেশীয় মূলধারার অনলাইন পোর্টাল ‘Bangla Tribune’ এ ১৩ ডিসেম্বর “জামায়াতের আমির গ্রেফতার” শীর্ষক শিরোনামে প্রকাশিত একটি প্রতিবেদন খুঁজে পাওয়া যায়।

প্রতিবেদনটি থেকে জানা যায়, জামায়াতে ইসলামীর আমির ডাক্তার শফিকুর রহমানকে রাজধানীর বসুন্ধরা আবাসিক এলাকার নিজ বাসা থেকে গ্রেফতার করেছে ঢাকা মহানগর পুলিশের সিটিটিসি ইউনিট।

পাশাপাশি প্রতিবেদনটি থেকে আরও জানা যায়, তার এই গ্রেফতারের প্রতিবাদে রাজধানীতে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশ করেছে দলটির নেতাকর্মীরা।

অর্থাৎ, গত ১২ ডিসেম্বর রাতে জামায়াতে আমিরকে গ্রেফতার করা হয় এবং উক্ত ঘটনার প্রেক্ষিতে দলটির নেতাকর্মীরা ১৩ ডিসেম্বর বিক্ষোভ মিছিল করেন।

তবে, জামায়াত আমিরের মুক্তির দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল হলেও রাজপথ ঘেরাওয়ের দাবিতে প্রচারিত ভিডিওটির সাথে বর্তমান সময়ের কোনো ঘটনার মিল খুঁজে পাওয়া যায় নি এবং ২০২০ সালের নভেম্বরে ভাষ্কর্যবিরোধী আন্দোলনের ভিডিওর সাথে উক্ত ভিডিওর মিল খুঁজে পাওয়া যায়। 

মূলত, ২০২০ সালের নভেম্বরে ঢাকায় কওমী মাদ্রাসার শিক্ষার্থীরা ভাষ্কর্যবিরোধী আন্দোলন করে। সে সময়ের একটি ভিডিওকে জামায়াতে আমির ডাক্তার শফিকুর রহমানের মুক্তির জন্য জামায়াত-শিবিরের রাজপথ ঘেরাও দাবিতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচারিত হচ্ছে। 

সুতরাং, ২০২০ সালের ভিন্ন ঘটনার আন্দোলনের ভিডিওকে সম্প্রতি জামায়াত শিবিরের আন্দোলনের ভিডিও দাবিতে প্রচার করা হচ্ছে; যা বিভ্রান্তিকর।

তথ্যসূত্র



Source link