Categories
Bollywood Movies Download

Gray Man Movie Review


Disclosure: This content is reader-supported, which means that if you click on some of our links. then we may earn a commission.

অনেক অপেক্ষার পর ফাইনালি চলে এলো The Gray Man মুভির ট্রেইলার। মুভিটা এইজন্য অনেক বেশি স্পেশাল এর কারন হলো এই মুভিতে তামিল এক্টর ধানুষ রয়েছে। সাথে আরো আছেন আমাদের ক্যাপ্টেন আমেরিকা (Chris Evans)। 
Gray Man Movie Review

ট্রেইলারে ধানুষকে খুবই অল্প সময়ের জন্য দেখতে পেরেছি। তবে আশা করি মুভিতে তাকে ভালো স্কিন টাইম দেওয়া হবে🖤

মুভিটা ডিরেক্ট করেছেন Russo Brothers যিনি Avengers Civil War, Avengers Infinity War, Avengers End Game এবং নেটফ্লিক্সের Extraction এর মতো মুভি ডিরেক্ট করেছেন।

The Gray Man মুভির বাজেট ২০০M ডলার অর্থৎ ১৭৬০কোটি+

প্রথমে ১৫জুলাই কিছু সিনেমা থিয়েটারে মুক্তি পাবে।

এর এক সপ্তাহ পরে

মুভিটি ২২জুলাই নেটফ্লিক্সে রিলিজ হবে। 

ট্রেইলার লিংকঃ-

ধন্যবাদ সবাইকে। 

মুক্তি পেয়ে গেল প্রচুর অপেক্ষিত ও আলোচিত নেটফ্লিক্সের মুভি The Gray Man এর ট্রেইলার। 

অস্থির অস্থির একশন আছে😍অভিনয়ে আছে – Ryan Gosling, Chris Evans, Ana De Armas, Jessica Henwick, Dhanush. মুক্তি পাবে ২২ জুলাই ২০২২ এ🔥

🎬 The Gray Man (2022)

❌ Spoiler Alert ❌

এ বছরে মুক্তিপ্রাপ্ত আমার দেখা সবচেয়ে বাজে মুভির লিস্টে এই মুভিটি একদম উপরের দিকে থাকবে। মূলত রুশো ব্রাদার্স -রা এটা প্রমাণ করার জন্য উঠে পড়ে লেগেছেন যে MCU-এর বাইরে তারা একটা চুল বাকা করার সক্ষমতা রাখেন না। সাথে ছিল রায়ান গোসলিং যিনি তার সর্বোচ্চ চেষ্টা করেছেন মুভিটাকে ক্যারি করে ভালো কিছুর দিকে নিয়ে যাওয়ার কিন্তু ব্যর্থ হয়েছেন। 

শুধুমাত্র রায়ানের চরিত্র সিয়েরা সিক্স ক্যারেক্টারটির সাথেই হালকা একটু কানেক্টেড ফিল করেছি অন্যান্য ইউজলেস চরিত্রের তুলনায়। আর ভিলেন লয়েড (Chris Evans) এর লুক দেখে মনে হচ্ছিলো যে এক মেয়ে Fake Moustache লাগিয়ে আসছে।

মুভির সবথেকে ইউজলেস ক্যারেক্টার ছিল এই ভিলেন। মুভির অনেকের ভাষ্য অনুযায়ী ভয়ানক, সোসিওপ্যাথ লয়েড পুরো মুভিতে প্রত্যক্ষ কোনো ভূমিকা পালন করেনা, শুধু অর্ডার দেয়। লাইক তাকে মিশনে পাওয়ার দেওয়ায় সে যা ইচ্ছা তাই করতেছে আর তার প্রতি পদক্ষেপে ভুল হচ্ছে। তাকে বিন্দুমাত্র স্ট্র‍্যাটেজিক কিংবা বুদ্ধিমান একবারের জন্যেও এমন কিছু মনে হয়নি। উপরন্তু মনে হয়েছে যে ভিলেন চরিত্রটাই বাড়তি একটি চরিত্র। 

যদি ধরে নেই যে মুভিতে লয়েড নেই, শুধু সিয়েরা সিক্সের বস লাগছে তার পেছনে তাহলে মুভির স্টোরিতে বিন্দুমাত্র প্রভাব পড়বেনা।

নেটফ্লিক্সের ইতিহাসের হায়েস্ট বাজেটের ২ ঘণ্টা+ এই মুভিতে একটা টুইস্ট, টার্ন বা একটা শকিং মোমেন্ট, কিচ্ছু নেই। আই গেট ইট যে এইটা একটা পুরোদস্তুর একশন মুভি, কিন্তু এই মুভির একশন সিনগুলো মাত্রাতিরিক্ত বাজে, জঘন্য আর পুরোপুরি অখাদ্য। 

মুভিতে একটু পরপর হ্যান্ড টু হ্যান্ড, গান ফাইটিং সিন দেখা যায় কিন্তু কয়েক মিনিটের একশনে হাজারটা অতিরিক্ত, অপ্রয়োজনীয় ক্যামেরা কাটস দেখে লিট্রেলি মাথা ঘুরছে, বিরক্ত হয়ে গেছি। কয়েকটা একশন সিনগুলাকে এমনভাবে ধোয়াশার ভেতরে প্রেজেন্ট করা হয়েছে যে একবারের জন্য হলেও বোঝার উপায় নেই যে এরা কি একচুয়ালি মারামারি করতেছে নাকি একে অপরের চুল ছিড়তেছে।

চেজিং সিনগুলা দেখে মনে হলো মিশন ইম্পসিবলের প্যারোডি। বড় বড় চেজিং সিন দেখানোর ট্রাই করছে কিন্তু সব নষ্ট করছে। একটা সিন আছে যেখানে সিয়েরা সিক্স কে মারার জন্য ওর সামনে গোলাগুলিতে রীতিমতো বিশ্বযুদ্ধ শুরু হয়ে যায় আর ও বসে বসে নিজের চুল টানাটানি করে, একটা গুলিও ওর আশপাশ দিয়ে যায়না, ওকে মারার জন্য হাজারটা মানুষ চলে আসে আর সিক্স জাস্ট একটা হ্যান্ডগান দিয়ে সবাইকে উড়িয়ে দেয় কেউ ওর একটা চুলও বাকা করতে পারেনা।

PR:1/10

এক দিলাম রায়ানের প্রতি একটু বায়াসড হওয়ায়, নাহলে এ মুভিটা ১০ এ ১ দেওয়ার মতোও মনে হয়নি আমার কাছে।  যারা মুভিটিকে বেশি বেশি রেটিং দিচ্ছে, তারা মানসিকভাবে অসুস্থ! মুভিতে এক আন্ডারএইজড কিশোরীকে দেখে তারা এই রেটিং দিচ্ছে।

Disclosure: This post May contains affiliate links that support our Blog.
When you purchase something after clicking an affiliate link, we may receive a commission.
Also Note That We Are Not Responsible For Any Third-party Websites Link Contents





Source link

Leave a Reply