Categories
News

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে মাসুদুর রহমান মুকুলের আম্পায়ারিং করতে যাওয়ার দাবিটি মিথ্যা


সম্প্রতি “এশিয়া কাপের পর বিশ্বকাপেও আম্পায়ারিং করতে যাচ্ছেন বাংলাদেশের মাসুদুর রহমান মুকুল” শীর্ষক শিরোনামের একটি তথ্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়েছে।

যা দাবি করা হচ্ছে

গত ১৫ সেপ্টেম্বর ফেসবুকে ‘World All Sports Update’ নামক একটি পেজে প্রকাশিত একটি পোস্টে (আর্কাইভ) দাবি করা হয়, “এশিয়া কাপের পর বিশ্বকাপেও আম্পায়ারিং করতে যাচ্ছেন বাংলাদেশের মাসুদুর রহমান মুকুল।”

একই দাবিতে ফেসবুকের কিছু পোস্ট দেখুন এখানে, এখানে, এখানে এবং এখানে
পোস্টগুলোর আর্কাইভ ভার্সন দেখুন এখানে, এখানে, এখানে এবং এখানে

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে জানা যায়, টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে মাসুদুর রহমান মুকুলের আম্পায়ারিং করার দাবিটি সঠিক নয় বরং টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের জন্য  আইসিসি ঘোষিত আম্পায়ারদের তালিকায় বাংলাদেশের কেউ নেই।

কি-ওয়ার্ড সার্চের মাধ্যমে, গত ৩ অক্টোবর ক্রিকেটের বৈশ্বিক নিয়ন্ত্রক সংস্থা ‘ICC’ এর ওয়েবসাইটে “Match officials for ICC Men’s T20 World Cup 2022 announced” শীর্ষক শিরোনামে প্রকাশিত একটি সংবাদ বিজ্ঞপ্তি খুঁজে পাওয়া যায়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, অস্ট্রেলিয়ায় ২০২২ সালের পুরুষদের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে সেমিফাইনাল ও ফাইনাল বাদে বাকি সব ম্যাচের (প্রথম রাউন্ড ও সুপার টুয়েলভ পর্ব) জন্য ম্যাচ চারজন ম্যাচ রেফারি ও ১৬ জন আম্পায়ারের নাম ঘোষণা করা হয়েছে। ঘোষিত ১৬ জন আম্পায়ারের নামের তালিকা বিশ্লেষণ করে দেখা যায়, এদের মধ্যে অস্ট্রেলিয়ার তিনজন (পল উইলসন, পল রাইফেল, রড টাকার), ইংল্যান্ডের তিনজন (মাইকেল গফ, রিচার্ড ইলিংওর্থ, রিচার্ড কেটেলবোরো), পাকিস্তানের দুইজন (আলিম দার, আহসান রাজা), নিউজিল্যান্ডের দুইজন (ক্রিস ব্রাউন, ক্রিস গাফফানি), দক্ষিণ আফ্রিকার দুইজন (আড্রিয়ান হোল্ডস্টক, মারাইস ইরাসমাস), ভারতের একজন (নিতিন মেনন), শ্রীলঙ্কার একজন (কুমার ধর্মসেনা), জিম্বাবুয়ের একজন (ল্যাংটন রাসেরে) এবং ওয়েস্ট ইন্ডিজের (জো উইলসন) রয়েছেন।

এছাড়া চারজন ম্যাচ রেফারির মধ্যে অস্ট্রেলিয়া, জিম্বাবুয়ে, শ্রীলঙ্কা ও ইংল্যান্ডের একজন করে রয়েছেন তালিকায়।

অর্থাৎ, টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের জন্য আইসিসি ঘোষিত চারজন ম্যাচ রেফারি ও ১৬ জন আম্পায়ারের তালিকায় বাংলাদেশের কেউ নেই।

কী বলছেন মাসুদুর রহমান মুকুল?

মুকুলের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে আম্পায়ারিং করার খবর গত মাস থেকেই ফেসবুকে প্রচার হচ্ছিল। আইসিসির সংবাদ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের পর নিশ্চিত হওয়া গেছে যে, বিষয়টি গুজব ছিল। এর প্রেক্ষিতে খেলা বিষয়ক মূল ধারার দেশীয় গণমাধ্যম টি-স্পোর্টস মাসুদুর রহমান মুকুলের সাথে কথা বলেছে। মুকুল বলছিলেন, “আইসিসির একটা পলিসি আছে। আইসিসির কোনো বড় ইভেন্ট হলে কমপক্ষে দুই থেকে আড়াই মাস আগে হোমবোর্ডকে জানায়, (আপনার দেশের) এই আম্পায়ারকে আমরা নিতে চাচ্ছি। এই সময়টায় তিনি ফ্রি কিনা। তখন হোমবোর্ড ক্লিয়ারেন্স দিলে আইসিসি সংশ্লিষ্ট আম্পায়ারের সাথে যোগাযোগ করে। এমন কোনোকিছুই হয়নি (আমার সাথে)। আমি যতদূর জানি এটার প্রক্রিয়া এশিয়া কাপের আগেই হয়ে গেছে।”

মূলত, রেওয়াজ অনুযায়ী ক্রিকেটের কোনো বৈশ্বিক টুর্ণামেন্ট শুরুর আগে কাছাকাছি সময়ে আম্পায়ারদের তালিকা প্রকাশ করে আইসিসি। ১৬ অক্টোবর শুরু হতে যাওয়া টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপকে সামনে রেখেও গত ৩ অক্টোবর আম্পায়ারদের তালিকা দিয়েছে আইসিসি। এই তালিকায় বাংলাদেশের কোনো আম্পায়ার নেই৷ কিন্তু সম্প্রতি বাংলাদেশী আম্পায়ার মাসুদুর রহমান মুকুল টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে আম্পায়ারিং করতে যাচ্ছেন দাবিতে ফেসবুকে প্রচার করা হচ্ছে।

উল্লেখ্য, সম্প্রতি আরব আমিরাতে অনুষ্ঠিত এশিয়া কাপে ফাইনালসহ বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে আম্পায়ারের দায়িত্ব পালন করেন মাসুদুর রহমান মুকুল। এরপর থেকেই মুকুলকে বিশ্বকাপেও দেখা যাবে বলে গুঞ্জন ছিল।

প্রসঙ্গত, অস্ট্রেলিয়ায় অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া চলতি বছরের টি২০ বিশ্বকাপ শুরু হচ্ছে ১৬ অক্টোবর। কোয়ালিফায়ার, সুপার টুয়েলভ এবং সেমিফাইনাল শেষে ১৩ নভেম্বর ফাইনালের মধ্য দিয়ে পর্দা নামবে এবারের আসরের।

সুতরাং, টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে মাসুদুর রহমান মুকুলের আম্পায়ারিং করতে যাওয়ার দাবিটি মিথ্যা।

তথ্যসূত্র



Source link

Leave a Reply