Categories
Tips and Tricks

Dr. Fone – Android এবং iOS ডিভাইস ম্যানেজমেন্টের কমপ্লিট সফটওয়্যার | Techtunes


আসসালামু আলাইকুম টেকটিউনস কমিউনিটি, কেমন আছেন সবাই? আশা করছি ভাল আছেন। বরাবরেই মত আজকেও চলে এসেছি নতুন টিউন নিয়ে।

বর্তমান সময়ে স্মার্টফোন আমাদের লাইফের গুরুত্বপূর্ণ উপাদান হয়ে দাঁড়িয়েছে। এক মুহূর্ত ফোন ছাড়া আমরা ভাবতে পারি না সুতরাং হটাৎ ফোনের যেকোনো সমস্যায় আমাদের ঝামেলায় পড়তে হয়। গুরুত্বপূর্ণ ডাটা ডিলিট হয়ে যাওয়া, বুট লোগোতে আটকে থাকা, সহ বিভিন্ন সমস্যায় আমরা সার্ভিস সেন্টারে যেতে হয়। এতে করে  পকেট থেকে টাকাও চলে যায় কিছু।

কেমন হবে যদি এই সমস্যা গুলোর সমাধান একটি সফটওয়ারের মধ্যে পাওয়া যায়? যেকোনো সফটওয়ার সমস্যা সমাধান করা যায় এবং ডেটা ব্যাকআপ নেয়া যায়। এমনই একটা অল ইন ওয়ান সমাধান হচ্ছে Wondershare এর Dr.Fone।

Dr.Fone কি

Dr.Fone একটি অল ইন ওয়ান সফটওয়্যার যাতে আছে ডাটা রিকোভারি, Android এবং iOS ম্যানেজমেন্ট ব্যবস্থা। দারুণ এই অ্যাপটিতে আছে, System Repair, Data Backups, Data Eraser, Password Manager, System Repair, Screen Unlock, Phone Transfer, এর মত চমৎকার সব ফিচার।

Dr.Fone

অফিসিয়াল ওয়েবসাইট @ Dr.Fone

Dr.Fone এর বিভিন্ন ফিচার

এটিকে আপনার ডিভাইস ম্যানেজমেন্ট এর হাব হিসেবে ভাবতে পারেন। এই টিউনে আমরা দেখতে চলেছি দারুণ এই অ্যাপটির বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ ফিচার,

Data Recovery – এই ফিচারের মাধ্যমে আপনার ডিভাইসের মিসিং ফাইল গুলো রিকোভার করতে পারবেন।

Phone Manager – এই ফিচারের মাধ্যমে ফোন থেকে পিসিতে এবং পিসি থেকে ফোনে ফাইল আদান প্রদান করতে পারবেন।

WhatsApp Transfer – এর মাধ্যমে WhatsApp, LINE, Kik, Viper, এবং WeChat এর ট্রান্সফার, ব্যাকআপ এবং রিস্টোর করতে পারবেন।

Password Manager – iOS ডিভাইস পাসওয়ার্ড রিকোভার করা যাবে।

Screen Unlock – এই ফিচারের মাধ্যমে ফোনের যেকোনো স্ক্রিনলক যেমন, Lock screen, FRP, Apple ID, MDM, রিমুভ করা যাবে।

System Repair – iOS এবং Android সিস্টেম রিপেয়ার করা যাবে।

Phone Transfer – এক ফোন থেকে অন্য ফোনে ডাটা ট্রান্সফার করা যাবে।

Phone Backup – ডাটা ব্যাকআপ ও রিস্টোর করতে পারবেন।

Data Erase – ডিভাইস থেকে ডাটা পারমানেন্টলি ডিলিট করা যাবে।

Virtual Location – iOS এবং Android ডিভাইসের GPS লোকেশন পরিবর্তন করা যাবে। লোকেশন ভিত্তিক Pokemon GO, এর মত গেম গুলোর জন্য এটি সুবিধাজনক হবে।

Mirror Go – ডিভাইসের স্ক্রিন পিসিতে মিরর করতে পারবেন।

InClowdz – বিভিন্ন ক্লাউডে ফাইল Migrate এবং Sync করতে পারবেন।

চলুন এবার কিছু ফিচার বিস্তারিত দেখে নেয়া যাক।

Screen Unlock

প্রায় সময়ই এমন হয় আমরা আমাদের ফোনের লক-স্ক্রিন ভুলে যাই, তখন পড়তে হয় ঝামেলায়। একমাত্র পথ হচ্ছে ফোন রিসেট দেয়া কিন্তু ফোন রিসেট দেয়া বেশ ঝামেলার কাজ। কিন্তু আপনি Dr.Fone, এর চমৎকার ফিচারের মাধ্যমে ফোনের স্ক্রিন-লক রিমুভ করতে পারেন। ফিঙার-প্রিন্ট, পিন এমনকি আইফোনে পাসকোড ছাড়াই ফোন আনলক করতে পারবেন।

System Repair

যদি ফোন স্লো হয়ে যায় তাহলে System Repair ফিচারটির মাধ্যমে আপনি ফোনকে পুনরায় স্মোথ করে ফেলতে পারবেন। এটি ফোনকে রিসেট করে না, সঠিক ফার্মওয়ার খুঁজে বের করে রি-ইন্সটল করে। এটি আপনার ফোনের গুরুত্বপূর্ণ ডেটাকেও ঝুঁকিতে ফেলবে না। iOS এর জন্য দুটি মুড রয়েছে, একটির মাধ্যমে কমন এরর গুলো যেমন বুট লুপের মত এরর গুলো সলভ করা যায়। তাছাড়া রয়েছে আরেকটি এডভান্সড মুড, এডভান্সড মুডে ডেটা ক্ষতিগ্রস্ত হবার ঝুঁকি থাকে। তবে আপনি চাইলেই রিপেয়ারিং এর আগে ডাটা ব্যাকআপ নিয়ে নিতে পারেন।

আপনি এই অ্যাপ এর মাধ্যমে iTunes ছাড়াই iOS ডাউনগ্রেডও করতে পারবেন।

Phone Manager

ফোন ম্যানেজার Dr.Fone এর সেন্ট্রাল ফিচার। এর মাধ্যমে আপনি ফোনের ফাইল এক্সেস নিতে পারবেন এবং ম্যানেজ করতে পারবেন। কয়েকটা ক্লিক করেই আপনি ফোনের মিউজিক, ভিডিও, অ্যাপ এবং অন্যান্য ডাটা গুলো লোকেট করতে পারবেন। তাছাড়া ফাইল ব্রাউজ করার সুবিধা তো আছেই।

এই ফিচারের মাধ্যমে ফোন থেকে ফাইল পিসিতে আদান প্রদান করা যাবে, নতুন ফাইল তৈরি করা যাবে এবং ফাইল ফোল্ডার রিনেম করা যাবে। রয়েছে সিঙ্গেল ফাইল অথবা ব্যাচ ফাইল ট্রান্সফারের সুবিধা। পিসিতে বড় ফাইল ডাউনলোড করে ফোনে নিতে এই ফিচারটি বেশ কাজের।

দারুণ ব্যাপার হচ্ছে Contacts, Text messages, এবং অ্যাপ ও ট্রান্সফার করা যাবে এই ফিচারের মাধ্যমে। অ্যাপ আনইন্সটল ও করতে পারবেন অথবা ইন্সটল করতে পারবেন পিসি থেকে।

এই অ্যাপ এর মাধ্যমে এন্ড্রয়েট ইউজার মিডিয়া ফাইল iTunes library তে এক্সপোর্ট করতে পারবেন। তাছাড়া iTunes থেকে স্মার্টফোনেও ফাইল ইম্পোর্ট করতে পারবেন। আপনি এর মাধ্যমে iTunes Library ও রিবিল্ড করে নিতে পারবেন।

Phone Backup

Dr.Fone, এর মাধ্যমে আপনি ফোনের কমপ্লিট ব্যাকআপ নিতে পারবেন। ফোনের গুরুত্বপূর্ণ ডাটা ব্যাকআপ নিতে পারবেন যেকোনো সময় রিস্টোর করে নিতে পারবেন। চাইলে এক ডিভাইসের ব্যাকআপ অন্য ডিভাইসেও রিস্টোর দেয়া যাবে।

এই অ্যাপ এর মাধ্যমে কমপ্লিট ব্যাকআপ এবং নির্দিষ্ট ডাটা ব্যাকআপও নিতে পারবেন। একই সাথে রিস্টোরের ক্ষেত্রেও উভয় পদ্ধতি অবলম্বন করতে পারবেন। আপনি contacts, texts, call history, photos ব্যাকআপ নিতে পারবেন। ক্যাটাগরি অনুযায়ীও আপনি ফাইল ব্যাকআপ রিস্টোর করতে পারেন। iOS ইউজাররা এই ফিচারের মাধ্যমে iCloud এবং iTunes এর ডেটাও রিস্টোর করতে পারবেন।

Phone Transfer

চমৎকার একটি ফিচার এটি, এর মাধ্যমে কোন ধরনের ঝামেলা ছাড়াই আপনি এন্ড্রয়েট থেকে iOS ডিভাইসে সুইচ করতে পারবেন। দুইটি ডিভাইস কানেক্ট করুন এবং বিপরীত অপারেটিং সিস্টেমে ডেটা মুভ করে নিন।

iOS থেকে Android এ শিফট করলে আপনি Photos, Videos, Contacts, Contacts Blacklist, Text messages, Calendar Data, Voice Memos, Music, Alarms, সহ আরও অনেক কিছু মুভ করতে পারবেন। তবে উল্টোটা করলে লিস্টটা ছোট হয়ে আসবে। অ্যান্ড্রয়েড থেকে iOS এ শিফট করতে চাইলে আপনি Photos, Videos, Contacts, Text Messages, Bookmarks, Calendars, Voice Memos, এবং Music মুভ করতে পারবেন।

WhatsApp Transfer

আপনি Dr.Fone অ্যাপ এর মাধ্যমে WhatsApp এর কমপ্লিট ব্যাকআপ নিতে পারবেন এবং অন্য ডিভাইসে ট্রান্সফার করতে পারবেন। আপনি চাইলে রিগুলার বা বিজনেস একাউন্ট এর ব্যাকআপ তৈরি করতে পারবেন এবং চ্যাট iOS, Android এ রিস্টোর করতে পারবেন।

শুধু WhatsApp, অ্যাপ নয় আপনি LINE, Viber, Kik, এবং WeChat এর হিস্ট্রিও ট্রান্সফার করতে পারবেন।

Data Eraser

Data Eraser ফিচারের মাধ্যমে আপনি নির্দিষ্ট ফাইলও ডিলিট কর‍তে পারেন অথবা চাইলে পুরো ডিভাইসের ফাইলও পার্মানেন্ট ডিলিট করতে পারেন। পার্মানেন্ট ডিলিট মানে এমন ভাবে ডিলিট হবে যা আর রিস্টোর করা যাবে না। এটা ডেটা এমন ভাবে করাপ্ট করবে যা আর রিড করা যাবে না, মিলিটারি গ্রেড এলগোরিদমের ইন্টারনাল স্টোরেজ বা মেমোরি অসংখ্য বার ওভাররিড করবে যা আর রিকোভার করা যাবে না।

Password Manager

এই অ্যাপটির Password Manager শুধু মাত্র iOS ডিভাইসে ব্যবহার করা যাবে। এই ফিচারটির জন্য আপনাকে ১৪.৯৯ ডলার দিতে হবে। তবে এই ফিচারটি iOS এর জন্য হলেও ম্যাক কম্পিউটারের মাধ্যমে রিস্টোর করা যবে না, উইন্ডোজ অপারেটিং সিস্টেম লাগবে।

এটি অ্যাপল আইডি এবং পাসওয়ার্ড ডিটেক্ট করতে পারবে। এবং ইমেইল একাউন্ট, ক্রেডিট কার্ড নাম্বার, ওয়েবসাইট লগইন তথ্য পাওয়া যাবে। এটা বলতে গেলে একটি কমপ্লিট পাসওয়ার্ড ম্যানেজমেন্ট টুল। আপনি ওয়াইফাই পাসওয়ার্ড ও স্ক্রিন-টাইম পাসকোডও পাবেন এতে।

এই ফিচারের প্রয়োজন পড়ে যখন আপনার ফোন লক হয়ে যায়, এর মাধ্যমে আপনি সহজেই অন্য ডিভাইসে লগইন করে পাসওয়ার্ড দেখে নিতে পারবেন। চাইলে আপনি iOS এর পাসওয়ার্ড এক্সপোর্ট করে, Keeper, iPassword, Lastpass, এবং Dashlane এর মত পাসওয়ার্ড ম্যানেজার গুলোতে ইম্পোর্ট করতে পারবেন।

Virtual Location

দারুণ এই ফিচারের মাধ্যমে আপনি ফোনের GPS লোকেশন চেঞ্জ করতে পারবেন। বিভিন্ন গেমের ক্ষেত্রে এই ফিচারটি কাজে আসতে পারে যেমন Pokemon Go।

এর মাধ্যমে বন্ধুদের সাথেও মজা করতে পারবেন, ঘরে থেকে নিজের অবস্থান অন্য কোথাও দেখাতে পারবেন।

MirrorGo

নাম দেখেই হয়তো এই ফিচারটি সম্পর্কে আন্দাজ করতে পারছেন। এই ফিচারটির মাধ্যমে আপনি আপনার ফোনের স্ক্রিন পিসিতে শেয়ার করতে পারবেন। ফোন ওপেন না করেও আপনি চাইলে পিসিতে ফোনের স্ক্রিন দেখতে পারবেন।

InClowdz

Dr.Fone এর একটি ওয়েব বেসড ফিচার হচ্ছে InClowdz। এটার মাধ্যমে আপনি বিভিন্ন ক্লাউড ম্যানেজ করতে পারবেন। এটা একটা কমপ্লিট সলুয়েশন এবং সম্পূর্ণ নিরাপদ।

শেষ কথা

চমৎকার ইউজার ইন্টারফেসে কমপ্লিট সফটওয়্যার সলুয়েশন বলা যায় Dr.Fone অ্যাপটিকে। এক অ্যাপে আপনি পেয়ে যাবেন একের ভেতর অনেক সমাধান। তবে সফটওয়ারটির এডভান্সড সব ফিচার আনলক করতে পুরো প্যাকেজটি কিনতে পারেন।

তো আজকে এই পর্যন্তই পরবর্তী টিউন পর্যন্ত ভাল থাকুন, আল্লাহ হাফেজ।



Source link

Leave a Reply