Categories
টেকনোলজি

হিসাববিজ্ঞান নীতিমালা অনার্স ১ম বর্ষ সাজেশন (PDF)


অনার্স প্রথম বর্ষের জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষা ব্যবস্থাপনা বিভাগের সাজেশন। অনার্স ১ম বর্ষের হিসাববিজ্ঞান নীতিমালা অনার্স ১ম বর্ষ সাজেশন ও বিষয়ভিত্তিক প্রশ্নের উত্তর। বিষয়: হিসাববিজ্ঞান নীতিমালা, বিষয় কোড: ২১২৬০৫।

হিসাববিজ্ঞান নীতিমালা অনার্স ১ম বর্ষ সাজেশন

ক-বিভাগ: অতিসংক্ষিপ্ত প্রশ্নের উত্তর

১. হিসাব কী?
উত্তর : ইংরেজি ‘Account’ শব্দের বাংলা অর্থ হচ্ছে হিসাব যা ফরাসি ‘Accounter’ শব্দ হতে সৃষ্টি। কোনো নির্দিষ্ট ব্যক্তি প্রতিষ্ঠান বা সমিতির সম্পত্তি, দায়, আয়ব্যয় সংক্রান্ত লেনদেনগুলোর সংক্ষিপ্ত বিবরণীকে হিসাব বলে।

২. AAA প্রদত্ত হিসাববিজ্ঞানের সংজ্ঞাটি লেখ।
উত্তর : AAA প্রদত্ত হিসাববিজ্ঞানের সংজ্ঞাটি হলো- আর্থিক বৈশিষ্ট্যসম্পন্ন লেনদেন ও ঘটনাসমূহকে তাৎপর্যপূর্ণভাবে এবং অর্থের পরিমাণে লিপিবদ্ধকরণ, শ্রেণিবদ্ধকরণ, সংক্ষিপ্তকরণ ও এর ফলাফল বিশ্লেষণ করার কৌশলকে হিসাববিজ্ঞান বলে।

৩. GAAP কী?
উত্তর : GAAP হচ্ছে সর্বজনস্বীকৃত আন্তর্জাতিক হিসাববিজ্ঞান নীতিমালা। যায় পূর্ণরূপ হলো Generally Accepted Accounting Principles.

৪. হিসাব তথ্য কী?
উত্তর : যে প্রতিবেদনে লেনদেন, আর্থিক বিবরণী ও আর্থিক প্রতিবেদন উপস্থাপিত হয় এবং যা সংগ্রহ, প্রক্রিয়াজাতকরণ ও ব্যবহারকারীর নিকট তথ্য সরবরাহ করে থাকে তাকে হিসাববিজ্ঞান তথ্য বলে।

৫. ‘ক্রয়মূল্য নীতি’ বলতে কী বুঝ?
উত্তর : যে নীতি অনুযায়ী স্থায়ী সম্পত্তিকে ক্রয়মূল্য বা অর্জন মূল্যে লিপিবদ্ধ করা হয় তাকে ক্রয়মূল্য নীতি বলে।

৬. পূর্ণরূপ লেখ : i. IASB, ii. FCCA.
উত্তর : i. IASB এর পূর্ণাঙ্গ রূপ হলো International Accounting Standard Board. ii. FCCA এর পূর্ণরূপ হলো Fellow of Certified Chartered Accountants.

৭. পূর্ণরূপ লেখ : IFRS.
উত্তর : IFRSএর পূর্ণরূপ হলো International Financial Reporting Standards.

৮. পূর্ণরূপ লেখ : i. ICAB; ii. AAA.
উত্তর : i. ICAB এর পূর্ণাঙ্গ রূপ হলো The Institute of Chartered Accountants of Bangladesh. ii. AAA এর পূর্ণাঙ্গ রূপ হলো American Accounting Association.

৯. আর্থিক হিসাববিজ্ঞান কী?
উত্তর : আর্থিক হিসাববিজ্ঞান হলো হিসাববিজ্ঞানের এমন একটি শাখা যেখানে বিনিয়োগকারী, পাওনাদার এবং অন্যান্য বহিঃব্যবহারকারীদের অর্থনৈতিক এবং আর্থিক তথ্যাবলি সরবরাহ করা হয়।

১০. স্বত্বা ধারণা কী?
উত্তর : হিসাববিজ্ঞানের যে ধারণা অনুসারে ব্যবসায়কে মালিকানা হতে পৃথক করা হয় তাকে স্বত্বা ধারণা বলে।

১১. আধুনিক হিসাব সমীকরণ বলতে কী বুঝ?
উত্তর : হিসাবশাস্ত্রবিদগণ হিসাবের গাণিতিক শুদ্ধতা প্রমাণের জন্য যে আধুনিক সূত্র প্রকাশ করেছেন তা মৌলিক হিসাব সমীকরণ বা আধুনিক হিসাব সমীকরণ নামে পরিচিত। হিসাব সমীকরণটি হচ্ছে A = L + OE যার বর্ধিত রূপ হচ্ছে A = L+ (OE + 1- E – D)।

১২. হিসাব প্রক্রিয়া কাকে বলে?
উত্তর : যে প্রক্রিয়ায় ব্যবসায়িক লেনদেন লিপিবদ্ধকরণ, শ্রেণিবদ্ধকরণ, সংক্ষিপ্তকরণ এবং তথ্য সরবরাহের উদ্দেশ্যে আর্থিক ফলাফল নির্ণয়ের উপায় আলোচনা করা হয় তাকে হিসাব প্রক্রিয়া বলে।

১৩. হিসাব চক্র কাকে বলে?
উত্তর : যে চক্রের মাধ্যমে হিসাববিজ্ঞান প্রক্রিয়ার ধাপসমূহ চক্রাকারে আবর্তিত হয় তাকে হিসাব চক্র বলে।

১৪. সরল দাখিলা কী?
উত্তর : কোনো একটি লেনদেনের জন্য জাবেদা বহিতে যখন একটি ডেবিট ও একটি ক্রেডিট হিসাব থাকে তখন তাকে সরল দাখিলা বা সরল জাবেদা দাখিলা বলে।

১৫. মিশ্র জাবেদা দাখিলা কী?
উত্তর : যখন কোনো লেনদেন দুইয়ের অধিক পক্ষকে প্রভাবিত করে এবং একাধিক পক্ষকে ডেবিট অথবা ক্রেডিট করে জাবেদা দাখিলা করতে হয়, তাকে মিশ্র জাবেদা দাখিলা বলে।

১৬. সমাপনী জাবেদা দাখিলা কাকে বলে?
অথবা সমন্বয় কী?
উত্তর : হিসাবকাল শেষে চূড়ান্ত হিসাব প্রস্তুত করার পূর্বে যে বাজার দাখিলার মাধ্যমে হিসাবসমূহ বন্ধ করা হয় তাকে সমাপনী দাখিলা বা সমাপনী জাবেদা দাখিলা বলে।

১৭. খতিয়ান কাকে বলে?
উত্তর : দৈনন্দিন সংঘটিত লেনদেনসমূহ জাবেদা থেকে স্থানান্তর করে প্রতিটি হিসাবের জন্য পৃথক পৃথকভাবে যে, বইতে সংরক্ষণ করা হয় তাকে খতিয়ান বলে।

১৮. পোস্টিং বলতে কী বুঝ?
উত্তর : যে প্রক্রিয়ায় জাবেদা থেকে লেনদেনগুলো তারিখের ক্রমানুসারে খতিয়ানে হস্তান্তর করা হয় তাকে পোস্টিং বা খতিয়ানভুক্তি বলে।

১৯. রেওয়ামিল কী?
উত্তর : একটি নির্দিষ্ট সময়ে হিসাবের গাণিতিক শুদ্ধতা যাচাই করার জন্য খতিয়ানের ডেবিট ও ক্রেডিট জেরগুলো নিয়ে যে বিবরণী প্রস্তুত করা হয় তাই হলো রেওয়ামিল।

২০. অনিশ্চিত হিসাব কী?
উত্তর : রেওয়ামিলে গরমিল দেখা দিলে যে হিসাব খুলে সাময়িকভাবে রেওয়ামিল মিলানো হয় তাকে অনিশ্চিত হিসাব বলে। এটি একটি সাময়িক হিসাব।

২১. অনুপার্জিত আয়ের দুইটি উদাহরণ দাও।
উত্তর : অনুপার্জিত আয়ের দুইটি উদাহরণ হলো- সেবা প্রদান বাবদ অগ্রিম প্রাপ্তি, উপভাড়াটিয়া হতে অগ্রিম প্রাপ্তি।

২২. হিসাব তথ্য ব্যবস্থা কাকে বলে?
উত্তর : যে তথ্য ব্যবস্থায় দৈনন্দিন লেনদেনসমূহের তথ্য সংগ্রহ ও প্রক্রিয়া করে আর্থিক তথ্য ব্যবহারকারী বা উৎসাহী পক্ষের নিকট পৌঁছিয়ে দেওয়া হয় তাকে হিসাব তথ্য ব্যবস্থা বলে।

২৩. বিশেষ জাবেদা বলতে কী বুঝায়?
অথবা, বিশেষ জাবেদা কী?
উত্তর : যেসব লেনদেন কারবারে বার বার সংঘটিত হয় এবং একাধিকবার একই রকম জাবেদা দিতে হয় সেক্ষেত্রে লিপিবদ্ধকরণ ঝামেলা এড়ানোর জন্য যে বিশেষ জাবেদা দাখিলা পদ্ধতি অবলম্বন করা হয় তাকে বিশেষ জাবেদা বলে।

২৪. ভাউচার কী?
উত্তর : কারবারে সংঘটিত লেনদেনগুলাের সত্যতা যাচাই করার জন্য প্রমাণস্বরূপ যেসব লিখিত দলিল; যেমন- চালান, রশিদ, চুক্তিপত্র, চিঠিপত্র ইত্যাদি ব্যবহার করা হয় সেগুলোই হলো ভাউচার বা প্রমাণপত্র।

২৫. নিট মূল্য পদ্ধতি কী?
উত্তর : যে পদ্ধতিতে বাট্টা বাদ দিয়ে পণ্যের মূল্যায়ন করা হয় তাকে নিট মূল্য পদ্ধতি বলে।

২৬. আর্থিক বিবরণী কাকে বলে?
উত্তর : একটি নির্দিষ্ট হিসাবকালে বা আর্থিক বছর শেষে প্রতিষ্ঠানের সামগ্রিক কার্যক্রমের আর্থিব ফলাফল, আর্থিক অবস্থা এবং মালিকানাস্বত্বের হ্রাস-বৃদ্ধি ও নগদ তহবিল সম্পর্কে জানার জন্য যে বিবরণী প্রস্তুত করা হয় তাকে আর্থিক বিবরণী বলে।

২৭. আর্থিক বিবরণীগুলো কী কী?
উত্তর : আর্থিক বিবরণীগুলোর নাম নিম্নরূপ :
i. আয় বিবরণী (Income statement);
ii. মালিকানা তহবিল/সংরক্ষিত আয় (Owner’s equity/Retained earnings) এবং
iii. উদ্বৃত্তপত্র (Balance sheet)।

২৮. নগদ প্রবাহ বিবরণী বলতে কী বুঝায়?
উত্তর : নগদ প্রবাহ বিবরণী বলতে যে আর্থিক বিবরণীতে কোনো প্রতিষ্ঠানের একটি নির্দিষ্ট হিসাবকালে সংঘটিত নগদ অর্থের আগমন এবং নির্গমন প্রদর্শনপূর্বক বিবরণী তৈরি করা হয় তাকে বুঝায়।

২৯. পুঞ্জীভূত অবচয় কোন প্রকৃতির হিসাব?
উত্তর : পুঞ্জীভূত অবচয় বিপরীত সম্পত্তি হিসাব।

৩০. পরিচালন খরচ কী?
উত্তর : ব্যবসায় প্রতিষ্ঠানে বিক্রীত পণ্যের ব্যয় ব্যতীত বিক প্রশাসনিক কাজকর্মের জন্য সংঘটিত খরচসমূহকে পরিচালন ব্যয় বলে।

৩১. মূলধন সঞ্চিতি কাকে বলে?
উত্তর : কারবার প্রতিষ্ঠানের নিয়মিত ব্যবসায় কার্যক্রম ব্যতীত অন্য কোনো উপায়ে অর্জিত মুনাফা হতে যে সঞ্চিতি তৈরি করা হয় তাকে মূলধন সঞ্চিতি বলে।

৩২. বিলম্বিতকরণ বলতে কী বুঝায়?
উত্তর : বিলম্বিতকরণ বলতে পরবর্তী বছরের জন্য স্থানান্তর বা অগ্রিমকে বুঝায়। যা ভবিষ্যতে খরচের জন্য রেখে দেওয়া হয়।

৩৩. নগদ কাকে বলে?
উত্তর : যে সম্পদের মধ্যে কয়েন, বৈদেশিক মুদ্রা, চেক, মানি অর্ডার অথবা হাতে নগদ বা ব্যাংক জমা অথবা এরূপ জমা অন্তর্ভুক্ত থাকে, যা খুব অল্প সময়ে তরল সম্পদে পরিণত করা যায় তাকে নগদ বলে।

৩৪. নগদ সমতুল্য কাকে বলে?
উত্তর : এক বছর বা তার কম সময়সম্পন্ন স্বল্পমেয়াদি উচ্চ তরল সম্পদ, যা নির্দিষ্ট সময়ে নগদে রূপান্তর করা যায় তাকে নগদ সমতুল্য বলে।

৩৫. ডেবিট মেমোরেন্ডাম বলতে কী বুঝ?
উত্তর : ব্যাংক কর্তৃক ইস্যুকৃত যে দলিলে আমানতকারীর হিসাব থেকে বিভিন্ন কর্তন উল্লেখ করা হয় তাই ডেবিট মেমোরেন্ডাম।

খ-বিভাগ: সংক্ষিপ্ত প্রশ্ন

১. হিসাববিজ্ঞানের আধুনিক সংজ্ঞা দাও।
অথবা, হিসাববিজ্ঞান কী?
২. হিসাববিজ্ঞানকে ব্যবসায়ের ভাষা বলা হয় কেন?
অথবা, “হিসাববিজ্ঞান ব্যবসয়ের ভাষা।”- ব্যাখ্যা কর।
৩. “হিসাববিজ্ঞান ব্যবস্থাপনার সহায়ক।” ব্যাখ্যা কর।
৪. হিসাববিজ্ঞান হতে কী কী তথ্য সংগ্রহ করা যায়?

৫. আধুনিক হিসাব সমীকরণ কী? ব্যাখ্যা কর।
৬. হিসাব সমীকরণের উপাদানগুলো কীভাবে মালিকানাস্বত্বকে প্রভাবিত করে আলোচনা কর।
৭. হিসাবচক্র বলতে কী বুঝ?
৮. সহায়ক খতিয়ান কী?
৯. সহায়ক খতিয়ানের সুবিধাগুলো আলোচনা কর।

১০. সর্বজনস্বীকৃত হিসাববিজ্ঞান নীতিমালার বৈশিষ্ট্য লেখ।
অথবা, সাধারণভাবে স্বীকৃত হিসাবনীতিসমূহের বৈশিষ্ট্য বর্ণনা কর।
১১. প্রাপ্য হিসাব ও প্রাপ্য নোটের মধ্যে পার্থক্য দেখাও।
অথবা, প্রাপ্য বিল ও প্রাপ্য নোটের পার্থক্য লেখ।
১২. অবচয় ধার্য না করার ফলাফল বর্ণনা কর।

১৩. চলতি দায় কত প্রকার? উদাহরণসহ ব্যাখ্যা কর।
১৪. অংশীদারি কারবার কাকে বলে?
১৫. “চুক্তি অংশীদারি কারবারের ভিত্তি।” আলোচনা কর।

গ-বিভাগ: রচনামূলক প্রশ্ন

১. হিসাববিজ্ঞান তথ্যের ব্যবহারকারী কারা? বর্ণনা কর।
২. হিসাববিজ্ঞানের ধারণা বা নীতিসমূহ বর্ণনা কর।
অথবা, হিসাববিজ্ঞানের দুটি নীতি বর্ণনা দাও।
৩. পাবলিক ও প্রাইভেট হিসাববিজ্ঞানের মধ্যে পার্থক্য লেখ।
৪. হিসাবরক্ষণ ও হিসাববিজ্ঞানের পার্থক্যগুলো লেখ।

৫. হিসাব চক্রের বিভিন্ন ধাপ আলোচনা কর।
অথবা, হিসাব চক্রের ধাপসমূহ বর্ণনা কর।
অথবা, হিসাব চক্রের বিভিন্ন ধাপ ব্যাখ্যা কর।
অথবা, হিসাব চক্রের বিভিন্ন পর্যায়গুলো কী? ব্যাখ্যা কর।
৬. খতিয়ানের উপকারিতা বা সুবিধাসমূহ বর্ণনা কর।
৭. ভূলের শ্রেণিবিভাগ দেখাও।

৮. নগদ ও বকেয়া ভিত্তিতে হিসাববিজ্ঞানের পার্থক্য দেখাও।
অথবা, বকেয়াভিত্তিক হিসাব ও নগদভিত্তিক হিসাব ব্যবস্থার মধ্যে পার্থক্য দেখাও।
৯. কালান্তিক মজুত ও অবিরত মজুত পদ্ধতির মধ্যে পার্থক্য দেখাও।
অথবা, অবিরত মজুত ও পর্যায়বৃত্ত মজুত পদ্ধতির মধ্যে পার্থক্য দেখাও।
১০. কুঋণ প্রত্যক্ষ অবলোপন পদ্ধতিতে কীভাবে হিসাবভুক্ত করা হয়? এর অসুবিধাসমূহ কী?

১১, অবচয় ধার্যের পদ্ধতিগুলো বর্ণনা কর।
১২. অবচয়, ক্রমাবলোপন এবং নিঃশেষ বা শূন্যকরণের মধ্যে পার্থক্য।
১৩. দায়ের প্রকারভেদ আলোচনা কর।

১৪. শেয়ার ও ঋণপত্রের মধ্যে পার্থক্য দেখাও।
১৫. অংশীদারি কারবারে সুনাম হিসাবভুক্তকরণ পদ্ধতি বর্ণনা কর।
১৬. সুনাম মূল্যায়নের বিভিন্ন পদ্ধতি আলোচনা কর।

Answer Sheet


আরো দেখো : ব্যবস্থাপনা ১ম বর্ষের সকল বিষয়ের উত্তরসহ সাজেশন


অনার্স চতুর্থ বর্ষের পরীক্ষার্থীরা, কোর্সটিকায় তোমরা এ সাজেনটি উত্তরসহ সংগ্রহ করতে পারবে। ওপরে দেওয়া Answer Sheet অপশনে ক্লিক করে অনার্স ১ম বর্ষের ব্যবস্থাপনা বিভাগের ব্যবস্থাপনা নীতিমালা অনার্স প্রথম বর্ষ pdf সংগ্রহ করে নাও। ডাউনলোড করতে অসুবিধা হলে আমাদের ফেসবুক পেজে ইনবক্স করো। শিক্ষার্থীরা অন্যান্য বিষয়ের নোট ও সাজেশান্স পেতে আমাদের YouTube চ্যানেলটি SUBSCRIBE করতে পারো এই লিংক থেকে।



Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published.